• শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ০৩:০৯ পূর্বাহ্ন |
  • Bangla Version
নিউজ হেডলাইন :
করোনা শনাক্তের হার ১৫ শতাংশের বেশি, মৃত্যু ১ কালিয়াকৈরে কলেজছাত্র হত্যাকারীদের গ্রেফতার দাবিতে মানববন্ধন টাঙ্গাইলে নদীর পানি কমলেও তীব্র হচ্ছে ভাঙন গণতন্ত্র ও খালেদা জিয়ার মুক্তির লক্ষ্যে সবাই ঐক্যবদ্ধ: আমীর খসরু খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য ‘দাওয়াই’ লাগবে: মির্জা আব্বাস কোটা পুনর্বহাল বৈষম্য প্রকট করবে: এবি পার্টি কাঁচা মরিচের ঝাল ও পেঁয়াজের ঝাঁজ দুটোই বেশি বাজারে আর্থিক তথ্য প্রকাশ আরও সীমিত করল কেন্দ্রীয় ব্যাংক সপ্তাহের শেষ দিনে বিক্রির চাপে সূচক ও লেনদেন কমেছে তীব্র লোডশেডিংয়ে ভুগছেন মফস্‌সলের ছোট উদ্যোক্তারা সুন্দরবনের যে ফলটি হরিণ-বানরের প্রিয়, কাজে লাগে মানুষেরও তিন ঘণ্টার ৬০ মিলিমিটার বৃষ্টিতে ডুবল ঢাকার অনেক রাস্তা তমাকে বিয়ে প্রসঙ্গে যা বললেন রাফী ‘সিনেমাটি না দেখলে মিস করবেন’, বললেন জয়া প্রশ্নপত্র ফাঁস–কাণ্ডে গ্রেপ্তার আবেদ আলীর দেখা চান বাপ্পি চৌধুরী ‘অ্যানিমেল’-এর সাফল্যে কত পারিশ্রমিক বাড়ালেন তৃপ্তি

অতীত ভোলেননি বিজয়

বিনোদন ডেস্ক slot gacor hari ini বাণিজ্যিক সিনেমা থেকে শৈল্পিক ঘরানা—সব ধরনের সিনেমায় দেখা যায় তাঁকে। আগে কেবল দক্ষিণি সিনেমা করলেও ‘ফরজি’, ‘জওয়ান’-এর মতো হিন্দি সিরিজ ও সিনেমা করে ভারতজুড়ে পরিচিতি পেয়েছেন বিজয় সেতুপতি।

গত শুক্রবার মুক্তি পেয়েছে বিজয়ের নতুন সিনেমা ‘মহারাজা’। ছবির প্রচারে এক সাক্ষাৎকারে নিজের অতীত নিয়ে অনেক কথাই বলেছেন এই অভিনেতা। খবর ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের। এখন খ্যাতি উপভোগ করছেন ঠিকই, কিন্তু মাঝেমধ্যেই নিজের হারিয়ে যাওয়া সত্তার কথা মনে পড়ে তাঁর। অতীতের কোন মানুষকে আজও সবচেয়ে বেশি মনে পড়ে?

উত্তরে বিজয় বলেন, ‘আমার নিজের কথাই সবচেয়ে বেশি মনে পড়ে। একটা খুব সহজ-সরল ছেলে ছিল। তার কোনো স্বপ্ন ছিল না। সে নিজেও জানত না, জীবনে সে কী করতে চায়। কলেজে প্রথম বর্ষে পড়ার সময়ে এটাও জানত না সে দ্বিতীয় বর্ষে কী পড়াশোনা করবে। বন্ধুরা বলে দিত সব।’

নিজের সম্পর্কে বিজয় আরও বলেন, ‘আমি খেলাধুলা, পড়াশোনা—কোনোটাই ভালো পারতাম না। কলেজে কোনো মেয়ের সঙ্গে কথা বলতাম না। খুব লাজুক ছিলাম। তবু মনে মনে এই ছেলে ভাবত, তাকে বড় কিছু হয়ে উঠতে হবে। কিন্তু কীভাবে বড় হতে হয়, তা জানা ছিল না তার।’

একসময় দারিদ্র্যের মধ্যে কেটেছে বিজয়ের। তাই খুব বড় স্বপ্ন না থাকলেও দারিদ্র্য থেকে বেরোতে চাইতেন তিনি। অভিনয়ে পা রাখার আগে একটি চাকরি পেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু আশানুরূপ বেতন না থাকায় পরিবারকে সেভাবে সাহায্য করতে পারেননি। পরে মধ্যপ্রাচ্যেও কাজ করতে গিয়েছিলেন। কিন্তু অভিনয়ে আসার পর থেকে আর পেছন ফিরে তাকাতে হয়নি তাঁকে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.